surah bangla

surah nas | সূরা নাস | surah nas bangla

surah nas,প্রিয় বন্ধুগণ সূরা নাস কিভাবে সহীহ শুদ্ধ বাংলা উচ্চারণ সহ তেলাওয়াত শিখবেন এই পোস্টটিতে আমরা বাংলা উচ্চারণ এবং ভিডিওতে তেলাওয়াত শেখানোর চেষ্টা করব চলুন শুরু করি।

 

surah nas

surah nas

আন-নাস শব্দের অর্থ হল “মানবজাতি” সূরা আন-নাস ও সূরা আল-ফালাক সূরা দুটি ভিন্ন হলেও এদের সাথে গভীর সম্পর্ক রয়েছে। সূরা দুটির বিষয়বস্তু একই এবং একই ঘটনার প্রেক্ষিতে নাযিল করা হয়েছে। আসুন ঘটনাটি জেনে নেওয়া যাক।

সূরা নাস বাংলা উচ্চারণ

সূরা নাস বাংলা উচ্চারণ

সূরা নাস বাংলা সহীহ শুদ্ধ উচ্চারণ আমরা উল্লেখ করলাম এখানে বাংলা উচ্চারণ এবং আরবি উচ্চারণ। 

قُلْ أَعُوذُ بِرَبِّ النَّاسِ
কুল আ’উযুবিরাব্বিন্না-ছ।
مَلِكِ النَّاسِ
মালিকিন্না-ছ
إِلَـٰهِ النَّاسِ
ইলা-হিন্না-ছ।
مِن شَرِّ الْوَسْوَاسِ الْخَنَّاسِ
মিন শাররীল ওয়াছ ওয়া-ছিল খান্না-ছ।
الَّذِي يُوَسْوِسُ فِي صُدُورِ النَّاسِ
আল্লাযি ইউওয়াছ ইসু ফী সুদুরিন্নাছ-।
مِنَ الْجِنَّةِ وَالنَّاسِ
মিনাল জিন্নাতি ওয়ান্না-ছ।

সূরা নাস

সূরা নাস

সহীহ মুসলিমে ওকবা ইবনে আমের (রাঃ) এর বর্ণিত হাদিসে এসেছে — নবীজি (সাঃ) বলেন, তোমরা লক্ষ্য করেছ কি, অদ্য রাত্রিতে আল্লাহ তায়ালা আমার প্রতি এমন আয়াত নাজিল করেছেন, যার সমতুল্য আয়াত দেখা যায় না। অন্য এক রেওয়ায়েতে আছে, তাওরাত,ইঞ্জিল,যাবুর ও কোরআনেও সূরা নাসের অনুরূপ অন্য কোন সূরা নেই।

আয়েশা (রাযিআল্লাহু আনহা) থেকে বর্ণনা করেছেন, রাসূলুল্লাহ্ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম) যখ বিছানায় আসতেন, তখন আপন দু’হাতের তালুতে ‘কুলহু আল্লাহু আহাদ’ এবং সূরা নাস ও সূরা ফালাক পড়ে দম করতেন। তারপর উভয় কজির তালু মুখের ওপর মুছে নিতেন আর দেহের যতটুকু হাত দু’খান পৌঁছতো ততটুকুতে হাত বুলিয়ে দিতেন। আয়েশা (রাযিআল্লাহু আনহা) বলেছেন, যখন রাসূলুল্লাহ্ (সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম) অসুস্থ হতেন, তখন আমাকে অনুরূপভাবে করতে হুকুম দিতেন। ইউনুস বলেছেন, ইবনে শিহাব যখন তাঁর বিছানায় যেতেন, তখন তাঁকে অনুরূপ করতে আমি দেখতাম। (বুখারী, হাদীস নং ৭৪৮ )

surah nas bangla

surah nas bangla

সূরা নাস পবিত্র কোরআন-এর ১১৪তম এবং শেষ সূরা| এটি ৬ আয়াত বিশিষ্ট একটি সূরা| এখানে আল্লাহর কাছে আশ্রয় চাওয়ার কথা বলা হয়েছে রাক্ষস ও শয়তানের আক্রমন থেকে|

সূরা নাস বাংলা অর্থ

সূরা নাস বাংলা অর্থ

পরম দয়ালু, দয়াময় আল্লাহর নামে শুরু করছি:
১.আপনি বলুন, আমি মানবজাতির প্রতিপালকের নিকট আশ্রয় চাই।
২. মানুষের মালিকের নিকট।
৩. মানুষের উপাস্যর নিকট।
৪. গোপনে কুমন্ত্রণাদাতা (শয়তানের) অনিষ্ট হতে।
৫. যে মানুষের অন্তরে কুমন্ত্রণা দেয়।
৬. জিন অথবা মানুষের মধ্য থেকে।

সূরা নাসের ফজিলত

সূরা নাসের ফজিলত

প্রতিদিন সকাল-সন্ধ্যায় তিন কুল হিসেবে পরিচিত সূরা ইখলাস, সূরা ফালাক ও এই সূরা পাঠ করলে সমস্ত প্রকার বিপদাপদ ও কষ্ট থেকে রক্ষা পাওয়া যায়। বিশেষ করে শয়তান ও শয়তানরুপী মানুষের অনিষ্ট তথা ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা পাওয়া যাবে। এছাড়া প্রত্যেক ফরজ নামাজের পর সূরা ফালাকের সাথে এই সূরা পাঠের বিশেষ উপকারীতা আছে। রাসূল (সাঃ) প্রতি ফরজ নামাজের পর ও ঘুমাতে যাওয়ার আগে ও ঘুম থেকে উঠার পরে এই সূরাদ্বয় পাঠ করার আদেশ দিয়েছেন।

ayatul kursi bangla

ayatul kursi bangla
ayatul kursi bangla

আয়াতুল কুরসি কিভাবে বাংলা সহীহ শুদ্ধ উচ্চারণ সহ তেলাওয়াত শিখবেন আমাদের উপরের টাইটেল ক্লিক করলেই সে পোস্টটি দেখতে পারবেন কিভাবে সহীহ শুদ্ধ সূরা আয়াতুল কুরসি তেলাওয়াত করবেন।

সূরা নাস 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button